sonargaonpost.com
ঢাকাMonday , 24 July 2023
  1. অপরাধ
  2. অর্থনীতি
  3. আন্তর্জাতিক
  4. ইসলামিক
  5. এক্সক্লুসিভ
  6. খেলা-ধূলা
  7. চাকুরি
  8. ট্যুরিজম
  9. দূর্ঘটনা
  10. পড়াশোনা
  11. প্রবাস
  12. ফিচার
  13. বিজ্ঞান ও প্রযুক্তি
  14. বিনোদন
  15. রাজনীতি
 
আজকের সর্বশেষ সবখবর

অনিয়মিত অভিবাসন রুখতে মেলোনির ‘উদ্যোগে’ রোমে সম্মেলন

Editor: মোহাম্মদ শাহাদাৎ হোসেন সুমন
admin
July 24, 2023 10:36 am
Link Copied!

‘অনিয়মিত অভিবাসন প্রবাহ’ আটকানোর উপায় খুঁজতে ভূমধ্যসাগরীয় এবং মধ্যপ্রাচ্যের দেশগুলোকে নিয়ে ইতালি রবিবার একটি আন্তর্জাতিক সম্মেলনের আয়োজন করেছে। সম্মেলনটি প্রধানমন্ত্রী জর্জিয়া মেলোনির ‘উদ্যোগে’ সংগঠিত হয়েছে বলে সরকারের পক্ষ থেকে জানানো হয়েছে। ২০২২ সালে নির্বাচনী প্রচারের সময় তিনি দেশে অভিবাসীদের ‘আগমন ও অবস্থান বন্ধ করার’ প্রতিশ্রুতি দিয়েছিলেন।

ইতালির সরকার একটি বিবৃতিতে বলেছে, ‘সম্মেলনের লক্ষ্য হলো অভিবাসন নিয়ন্ত্রণ করা, মানবপাচারের বিরুদ্ধে লড়াই করা এবং দেশগুলোর মধ্যে সহযোগিতার একটি নতুন মডেলের ভিত্তিতে অর্থনৈতিক উন্নয়নের প্রচার করা।

রোমে অনুষ্ঠিত হওয়া উন্নয়ন ও অভিবাসন বিষয়ক এই আন্তর্জাতিক সম্মেলনে যোগদানকারীদের সম্পূর্ণ তালিকা জানা যায়নি। তবে তিউনিশিয়ার প্রেসিডেন্ট কাইস সঈদের উপস্থিতির বিষয়টি নিশ্চিত করেছেন ডানপন্থী প্রধানমন্ত্রী জর্জিয়া মেলোনি।

ইতালির অভিবাসী মোকাবেলা
মেলোনির প্রশাসন আইন পাস করে ভূমধ্যসাগরে অভিবাসী উদ্ধারকারী মানবিক জাহাজগুলোকে আটকানোর চেষ্টা করেছে। দেশটির নতুন এই আইনের কারণে ভূমধ্যসাগরে একটি উদ্ধার অভিযান শেষ করার পরই কর্তৃপক্ষের সিদ্ধান্ত অনুযায়ী নির্ধারিত বন্দরে চলে যেতে হয়।

এর ফলে সমুদ্রে আরো অনেক মানুষের জীবন ঝুঁকির মুখে পড়ছে।

ইতালির কর্তৃপক্ষ উদ্ধারকারী জাহাজগুলোকে কয়েক শ কিলোমিটার দূরের বন্দরে যাওয়ার নির্দেশ দিয়েছে।

মেলোনি বলেছেন, দাতব্য সংস্থার জাহাজগুলো অভিবাসীদের ক্ষেত্রে ‘ফেরি বোট’ হিসেবে যাতে কাজ না করে, তা দেখতেই এমন ব্যবস্থা নেওয়া হয়েছিল।

তিউনিশিয়াকে অর্থায়ন
ইউরোপীয় কমিশন এবং ইতালি তিউনিশিয়ার সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা বাড়িয়েছে।

যদি দেশটি অভিবাসীপ্রবাহ আটকাতে ব্যবস্থা নেয়, তাহলে দুই পক্ষ থেকেই তাদের অর্থায়নের প্রতিশ্রুতি দেওয়া হয়েছে। কারণ তিউনিশিয়া ভূমধ্যসাগরীয় পথে ইউরোপে আসা অভিবাসীদের একটি প্রবেশদ্বার।

গত সপ্তাহে ইইউ তিউনিশিয়ার সঙ্গে একটি সমঝোতা স্মারক স্বাক্ষর করেছে। এর মধ্যে রয়েছে দেশটির জন্য প্রস্তাবিত ৯০০ মিলিয়ন ইউরো অর্থনৈতিক সহায়তা প্যাকেজে। এ ছাড়া আরো ১৫০ মিলিয়ন ইউরো তাৎক্ষণিক বাজেট সহায়তার কথা বলা হয়েছে।

সীমান্ত ব্যবস্থাপনা এবং চোরাচালানবিরোধী কার্যক্রমের জন্য আরো ১০৫ মিলিয়ন ইউরো অর্থায়নের কথাও বলা হয়েছে।

জাতিসংঘের অভিবাসন সংস্থা আইওএমের পরিসংখ্যান অনুসারে, ২০২৩ সালে এ পর্যন্ত ইউরোপে এক লাখ ৯ হাজার ৬৮৮ জন প্রবেশ করেছে। দুই হাজার ১৫৩ জনের মৃত্যু হয়েছে বা নিখোঁজ রয়েছেন। ২০২২ সালে এক লাখ ৮৯ হাজার ৬২০ জন অভিবাসী ইউরোপে গেছেন। দুই হাজার ৯৬৫ জনের মৃত্যু হয়েছে বা নিখোঁজ হওয়ার ঘটনা ঘটেছে।